মঙ্গলবার, এপ্রিল ১৬, ২০২৪
Led01সদর

রাত পোহালেই ধলেশ্বরীর বুকে চিড়ে ছুটবে ফেরী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: হাজার হাজার মানুষের সোনালী প্রত্যাশার ডিক্রিরচর খেয়া ঘাটে ফেরী সার্ভিসের উদ্বোধন সব উৎসবে রূপ নিয়েছে। শনিবার সকালের জন্য যেন তর সইছে না নারায়ণগঞ্জ শহরের সঙ্গে আলীরটেকের মানুষের স্বপ্নের ফেরি পারাপারের।

নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য একেএম সেলিম ওসমান শনিবার সকালে ফেরি সার্ভিসের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন। এরপর থেকে সব ধরনের যান চলাচলের জন্য উন্মুক্ত হবে এই সার্ভিস।

সেই আয়োজনেরই এখন সব প্রস্তুতি শেষ। এখন শুধু ধলেশ্বরীর বুক চিড়ে যানবাহন ভাসিয়ে নেওয়ার অপেক্ষা।

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ৩০ হাজার মানুষের একটি ইউনিয়ন আলীরটেক। ধলেশ্বরী আর বুড়িগঙ্গা নদী উপজেলার মূল ভূখন্ডকে এই ইউনিয়নকে বিচ্ছিন্ন করেছে। এই ইউনিয়নটি শহরের মাত্র ২ কিলোমিটারের মধ্যে হলেও দুরুত্ব বাড়িয়ে ছিল নদী দু’টি। তাই ১৫ হাজার ভোটারের দীর্ঘদিনের প্রত্যাশা ছিল ডিক্রিরচর খেয়াঘাটে ফেরি সার্ভিস চালু করা।

স্থানীয় সংসদ সদস্য একেএম সেলিম ওসমান ও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জাকির হোসেনের প্রচেষ্টায় ১৪ অক্টোবর ফেরি সার্ভিস চালুর উদ্যোগ নিয়েছে জেলা সড়ক ও জনপথ অফিস (সওজ)।

সওজের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী মো. সাখাওয়াত হোসেন লাইভ নারায়ণগঞ্জকে জানান, সরকার থেকে অনুমতি নিয়ে এই ফেরি সার্ভিসটি চালু করে দেওয়া হচ্ছে। ১৪ তারিখ থেকে সার্ভিস শুরু হবে।

ডিক্রিরচরে ফেরি সার্ভিস চালু হলে আলীরটেকের মানুষ যেমন সহজেই নারায়ণগঞ্জে আসতে পারবে, একই ভাবে শহরের মানুষ আলীরটেক ইউনিয়ন ব্যবহার করে পদ্মাসেতুতে যেতে পারবে।

আলীরটেক ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জাকির হোসেন লাইভ নারায়ণগঞ্জকে বলেন, ফেরি সার্ভিস চালুর সকল প্রস্তুতি শেষ। এখন শুধু অপেক্ষার পালা।

আলীরটেক ইউনিয়নের বাসিন্দা ফারুক হোসেন লাইভ নারায়ণগঞ্জকে জানান, স্বাধীনতার পর থেকে এই অঞ্চলের মানুষ গাড়িতে কখনো সরাসরি বাড়ি আসতে পারেনি। তাই দীর্ঘদিনের প্রত্যাশা ছিল ফেরি সার্ভিসের। ফেরি সার্ভিস চালু হওয়ায় খবরে আমরা প্রচুর খুঁশি।

আলীরটেক ইউনিয়ন পরিষদের ১ নং ওয়ার্ডের সদস্য মো. জাকির হোসেন লাইভ নারায়ণগঞ্জকে জানান, ‘পদ্মা সেতু পেয়ে ভাঙ্গা, ফরিদপুরের মানুষ যেমন খুশি হয়েছিল। ঠিক একই রকম খুশি ধলেশ্বরী নদীর ডিক্রিরচর খেয়াঘাটে ফেরী সার্ভিস চালু হওয়ায় খবরে।’

RSS
Follow by Email