মঙ্গলবার, জুলাই ১৬, ২০২৪
Led05আদালতজেলাজুড়েরূপগঞ্জ

মোটরসাইকেল যৌতুক না দেয়ায় স্ত্রীকে হত্যা, ৮ বছর পর স্বামীর মৃত্যুদণ্ড

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: রূপগঞ্জে স্ত্রী হত্যায় এক যুবককে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন বিজ্ঞ আদালত। একই সঙ্গে তাকে ৫০ হাজার জরিমানা করা হয়েছে। রোববার বিকেলে জেলার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক নাজমুল হক শ্যামল ওই রায় ঘোষণা করেন। রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

মুত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামির নাম মো. জুয়েল মিয়া (২৮)। সে রূপগঞ্জের ইছাখালি এলাকার মো. মারফত আলীর ছেলে।

আদালত পুলিশের পরিদর্শক মো. আবদুর রশিদ বলেন, রূপগঞ্জ থানায় একটি হত্যা মামলায় জুয়েল মিয়া নামে একজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন বিজ্ঞ আদালত। বাদীপক্ষ রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, নগরপাড়া এলাকার মো. সিরাজ ভূঁইয়ার মেয়ে সুমি আক্তারের সঙ্গে ইছাখালি এলাকার মো. মারফত আলীর ছেলে মো. জুয়েল মিয়ার বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে সুমি আক্তারকে বিভিন্নভাবে নির্যাতন করে আসছিলেন। মেয়ের সুখের কথা চিন্তা করে দাবীকৃত যৌতুক বাবদ জুয়েলকে ৯০ হাজার প্রদান করা হয়। কিছুদিন পর আবার দুই লাখ ৯০ হাজার টাকা মূল্যের একটি মোটরসাইকেল দাবি করে। সুমি আক্তার প্রতিবাদ করলে তাকে মারধর করে। তিনি বাবার বাড়ি চলে গেলে বাবা মো. সিরাজ ভূঁইয়া টাকা যোগাড় করে মোটরসাইকেল কিনে দিবেন বলে মেয়েকে স্বামী বাড়িতে পাঠান। কিন্তু মোটরসাইকেল কিনে দিতে দেরি হওয়ায় ২০১৭ সালের ১৭ জুন সন্ধ্যায় শ্বাসরোধ করে সুমিকে হত্যা করে। এ ঘটনায় বাবা মো. সিরাজ ভূঁইয়া রূপগঞ্জ থানায় মামলা করলে ৭ জনের সাক্ষ্যপ্রমাণের ভিত্তিতে আদালত এ রায় ঘোষণা করেন।

RSS
Follow by Email