বৃহস্পতিবার, মে ৩০, ২০২৪
Led03সদর

মানুষ আইনগত অধিকার সম্পর্কে সচেতন হলে ভোগান্তি কমবে: জেলা ও দায়রা জজ

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনগত সহায়তা প্রদান কমিটির চেয়ারম্যান এবং জেলা ও দায়রা জজ উম্মে সরাবন তহুরা বলেছেন, আপনারা জানেন বাংলাদেশে প্রতিটি জেলায় লিগ্যাল এইড অফিস নিশ্চিত করা হয়েছে। এই লিগেল এইড অফিসের মাধ্যমে তিনটি কাজ করা হয়। প্রথমটি হচ্ছে জনগণের আইনগত পরামর্শ নেয়া। এটিতে কোনো বিশেষ যোগ্যতার প্রয়োজন নেই, ধনী-গরীব স্বচ্ছ যে কেউই লিগেল এইড অফিসে এসে আইনগত পরামর্শ জানতে পারেন। দ্বিতীয়টি মেডিয়েশন বা আপোষ, সাধারণত পারিবারিক মামলাগুলোতে হয়। মূলত আপোষযোগ্য মামলা গুলোতেই আপোষ কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। এছাড়া আর একটি সহায়তা লিগাল এইড অফিস দিয়ে থাকে। এটা হচ্ছে আইনগত সহায়তা। অর্থাৎ যে সমস্ত বিচারপ্রার্থী জনগণ তাদের মামলা পরিচালনার খরচ বহন করতে অসমর্থক। তাদেরকে বিনামূল্যে মামলার খরচ বহন করে সরকার সহায়তা করবে। এই বিষয়টির প্রাপ্তির ক্ষেত্রে আর্থিক যাচাই-বাছাই এর পূর্ব শর্ত রয়েছে।

জাতীয় আইনগত সহায়তা দিবস উপলক্ষে রবিবার (২৮ এপ্রিল) সকালে আদালত প্রাঙ্গনে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

দিবসটি উপলক্ষে জেলা আইনগত সহায়তা প্রদান কমিটির উদ্যোগে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

তিনি বলেন, জাতীয় আইনগত সহায়তা বিক দিবস এটি একটি সরকারি কর্মসূচি। এই দিবস টি সম্পর্কে যত বেশি মানুষ জানবে, তত বেশি মানুষ উপকৃত হবে। তার অধিকার বিষয়ে সচেতন হবে। আর মানুষ যত বেশি তার আইনগত অধিকার সম্পর্কে সচেতন হবে, তত বেশি তার ভোগান্তি কমে আসবে। আসুন আমরা সকলে এই আইনগত অধিকার বিষয়ে নিজ নিজ অধিকার বিষয় সচেতন হয়।

এসময় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক মো. মাহমুদুল হক, জেলা পুলিশ সুপার গোলাম মোস্তফা রাসেল, জেলা সিভিল সার্জন মোশিউর রহমান, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এড হাসান ফেরদৌস জুয়েল প্রমুখ।

RSS
Follow by Email