মঙ্গলবার, এপ্রিল ২৩, ২০২৪
Led05রাজনীতি

মহানগরের পাঁচ স্পটে মিছিল করে চমক দেখালেন টিপু

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জে কেন্দ্রীয় ঘোষিত হরতাল কর্মসূচি পালন করেছে নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপি। এতে দিনভর প্রশাসনের তৎপরতা ছিলো ব্যাপক। সকাল সাড়ে সাতটা থেকে পুলিশি বাধার মধ্যে দিয়ে, নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব এড. আবু আল ইউসুফ খান টিপুর নেতৃত্বে হরতালের সমর্থনে পাঁচটি স্থানে মিছিল করে চমক দেখিয়েছেন।

রবিবার (২৯ অক্টোবর) সকালে নগরীর চাষাড়া, নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাব, মিশন পাড়া এক ১নং রেলগেইট, মন্ডলপাড়া, নিতাইগঞ্জ এলাকাতে নারায়ণগঞ্জ বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা মিছিল করেছেন। এ সময় টিপু সরকারের পদত্যাগ ও নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দাবি করেন। একই সঙ্গে খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবিতে বিভিন্ন স্লোগান দেন।

নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব এড. আবু আল ইউসুফ খান টিপু বলেন, গতকাল পুলিশ, আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগ মিলে বিএনপির সমাবেশকে পন্ড করে। যার প্রতিবাদের আজ সকাল ৬টা থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত আমাদের হরতাল। আমরা সকাল ৭টার দিকে প্রেসক্লাবের সামনে জড়ো হচ্ছিলাম, এমন সময় পুলিশ আমাদের উপর নির্বিচারে গুলি চালিয়েছে। এর প্রতিবাদে আমরা শহরের বিভিন্ন স্থানে হরতালের সমর্থনে মিছিল করি।

টিপু বলেন, আমরা জনগনকে আহ্বান করবো, বিএনপি ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য এই হরতাল না। এই হরতাল দ্রব্য মূল্যের উর্ধ্বগতি ও বেগম খালেদা জিয়াকে বিদেশ প্রেরণ, ও এক দফা দাবি আদায়ে। আমরা জনগনকে বলবো আপনারা এই হরতাল সমর্থন করুন এবং এতে সম্পৃক্ত হন।

মিশনপাড়া মোড়ে উৎসব পরিবহনের একটি বাসে আগুন লাগার বিষয়ে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের লোকজন মিশনপাড়ার মোড়ে একটি বাসে আগুন দেয়। বিএনপির বদনাম করার জন্য ও আমাদের বেকায়দায় ফালানোর জন্য আওয়ামী লীগের লোকেরা বাসে আগুন দিয়েছে। এখানে বিএনপির কোন নেতাকর্মী জড়িত না।

এ সময় মিছিলে আরও উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক মনির হোসেন খান, সদর থানা বিএনপির সভাপতি মাসুদ রানা, সাধারণ সম্পাদক এড. এইচএম আনোয়ার প্রধান, নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক মনিরুল ইসলাম সজল, বন্দর উপজেলা বিএনপি`র সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশিদ লিটন, বিএনপি নেতা শেখ সেলিম আহমেদ, চঞ্চল মাহমুদ, মহিউদ্দিন শিশির, হারুন শেখসহ অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

RSS
Follow by Email