রবিবার, জুন ১৬, ২০২৪
Dis_leadLed03রাজনীতি

বিএনপির ত্যাগি নেতাকর্মীদের তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করা হচ্ছে: শামীম ওসমান

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ-৪ (ফতুল্লা-সিদ্ধিরগঞ্জ) আসনটিকে বিএনপির একটি শক্ত ঘাটি হিসেবে মনে করেন দলটির নেতাকর্মীরা। তবে এমনটি মনে করেন না নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের প্রভাবশালী নেতা শামীম ওসমান।

জানতে চাইলে বেসরকারি টেলিভিশনের এক সাংবাদিকের প্রশ্নের উত্তরে শামীম ওসমান বলেন, ‘আমার মনে হয়না ওই অঞ্চলে (ফতুল্লা-সিদ্ধিরগঞ্জ) বিএনপির একটি শক্ত ঘাটি আছে। বিএনপির ত্যাগি নেতাকর্মীদের যেভাবে তুচ্ছ-তাচ্ছিল্ল করা হচ্ছে। এখন যারা সামনের সারিতে এসেছেন তাদের বিরুদ্ধে এত অভিযোগ, ২০০১-২০০৬ পর্যন্ত তারা ১৭টা খুনের সাথে জড়িত। এমনকি বিএনপি নেতা তৈমুর আলম খানের ভাইয়ের হত্যার আসামীকেই জেলা বিএনপির সভাপতি করা হয়েছে।’

সুষ্ঠু নির্বাচন হলে (ফতুল্লা-সিদ্ধিরগঞ্জ) আসনে বিএনপি জয় লাভ করবে, দলটির নেতাকর্মীদের এমন দাবীর প্রেক্ষিতে আওয়ামী লীগের এই প্রভাবশালী নেতা বলেন, ‘আশা তো সবাই করবে। ২০০১ এ কিন্তু এখানে বিএনপি পাশ করে নাই। ওই বছর রাতের সারে তিনটা বাজে ঘোষনা দেয়, যে আমি পাশ করেছি। পরে সেনাবাহিনী গিয়ে বাক্স বদলে দেয়া হয়। সেনাবাহিনীর অফিসারটা ভালো ছিলেন, তিনি আমাকে বললেন যে, আপনি সরে পরেন। কারণ তখন বোম ব্লাস্টে আমার ডান পা ও বা হাতটা অচল ছিলো।’

জনগন আওয়ামী লীগকে আবারো নির্বাচিত করবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘আমার মনে হয় যে কাজ করেছি, মানুষ নৌকার দিক থেকে মুখ ফেরাবে না। তারা জানে তাদের কি করতে হবে।’

শামীম ওসমান বলেন, ‘আমরা সাংগঠনিক ভাবে শক্তিশালি। কয়েকদিন আগে আমি লন্ডনে ছিলাম, এসেই নেতাকর্মীদের নিয়ে মিটিং করি। আর আপনারা দেখেছেন আমরা বিশাল একটি মিছিল নিয়ে যাতে ৫০-৬০ হাজার লোক ছিলো; ঢাকার সমাবেশে যোগ দিতে পেরেছি।’

RSS
Follow by Email