বৃহস্পতিবার, মে ২৩, ২০২৪
Led04আড়াইহাজারজেলাজুড়েসোনারগাঁ

প্রেম করে বিয়ে, ভিকটিম উদ্ধার করতে গেলে পুলিশের উপর হামলা

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: সোনারগাঁয়ে ভিকটিম উদ্ধার করতে গিয়ে পুলিশের উপর হামলা করা হয়েছে। এই ঘটনায় অভিযুক্তদের ৫জনকে আটক করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাতে উপজেলার বৈদ্যেরবাজার ইউনিয়নের দামোদরদী গ্রামে ওই ঘটনা ঘটে। আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। বুধবার (২৪ জানুয়ারি) অভিযুক্তদের আদলতে প্রেরণ করা হয়েছে।

তথ্যটি লাইভ নারায়ণগঞ্জকে নিশ্চিত করেছেন সোনারগাঁও থানার ইন্সপেক্টর (অফিসার ইনচার্জ) এসএম কামরুজ্জামান।

জানা যায়, সম্প্রতি প্রেমের সূত্র ধরে আড়াইহাজার উপজেলার জাঙ্গালিয়া গ্রামের ব্যবসায়ী আবদুল গাফফার সরকারের মেয়ে প্রভা সরকার ও সোনারগাঁয়ের দামোদরদী গ্রামের নাজিমউদ্দিনের ছেলে সোনারগাঁ সরকারি কলেজের সম্মান শ্রেণির ছাত্র সাজিদ মিয়া বিয়ে করেন। এ নিয়ে প্রভার পরিবারের আপত্তি ছিল, তারা তাকে একাধিকবার ফিরিয়ে নেওয়ার চেষ্টা চালায়। তবে প্রভা প্রতিবারই পালিয়ে স্বামী সাজিদের বাড়িতে চলে যান। গত ৯ জানুয়ারি সাজিদের বাড়িতে যাওয়ার পর ২১ তারিখ সেখানে বেড়াতে আসেন প্রভার বাবা ও মা। ফিরে গিয়ে সাজিদের নামে অপহরণ মামলা করেন আবদুল গাফফার। এরই পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার রাত পৌনে ৮টার দিকে আসামি ধরতে আসেন আড়াইহাজার থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) নূরে আলম। তাকে সহায়তা করেন সোনারগাঁও থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আলমগীর হোসেন ও কনস্টেবল পারভেজ। সঙ্গে ছিলেন আবদুল গাফফার। পুলিশ সদস্যরা সাদা পোশাকে গিয়ে সাজিদকে হ্যান্ডকাফ পড়িয়ে বাড়ি থেকে নেওয়ার সময় ডাকাত বলে চিৎকার করলে সাজিদের স্বজনরা ও প্রতিবেশীরা ছুটে এসে তাদের ওপর হামলা চালায়।

খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধার এবং এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে সাজিদের চাচা ইলিয়াস মিয়া, প্রতিবেশী জাহাঙ্গীর, আমজাদ হোসেন, মামুন ও মারুফকে আটক করে।

সোনারগাঁ থানার ইন্সপেক্টর (অফিসার ইনচার্জ) এসএম কামরুজ্জামান বলেন, প্রভাকে উদ্ধার ও সাজিদকে গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। অপহরণ মামলার পরিপ্রেক্ষিতে অভিযানটি চালানো হয়েছিল। এতে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটে। আমরা অভিযুক্তদের দ্রুত আটক করে আইনের আওতায় নিয়ে আসবো।

RSS
Follow by Email