বৃহস্পতিবার, জুন ১৩, ২০২৪
Led04রাজনীতি

নগরীতে যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল ও ছাত্রদলের যৌথ বিক্ষোভ সমাবেশ

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: তারেক রহমান ও তার সহধর্মিনী ডা. জোবায়দা রহমানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মিথ্যা মামলায় সাজা প্রদানের প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে নারায়ণগঞ্জ জেলা যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল ও ছাত্রদল। বৃহস্পতিবার (৩ আগস্ট) নগর‌ীর খানপুর ঈশাঁখা সড়কে ওই বিক্ষোভ সমাবেশ করেন নেতৃবৃন্দ।

বিক্ষোভ সমাবেশে নারায়ণগঞ্জ জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি আনোয়ার সাদাত সায়েমের সভাপতিত্বে ও জেলা যুবদলের সদস্য সচিব মশিউর রহমান রনির সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক ও জেলা যুবদলের আহ্বায়ক গোলাম ফারুক খোকন।

এদিকে, বিক্ষোভ সমাবেশকে কেন্দ্র করে সকাল ১১টা থেকে দলে দলে মিছিল নিয়ে উপস্থিত হতে থাকে যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল ও ছাত্রদল। এ সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সরকারের বিরুদ্ধে নানা স্লোগান দেয় নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথি গোলাম ফারুক খোকন বলেন, এই অবৈধ নিশিরাতের সরকার কর্তৃক,তারেক রহমান ও জোবায়দা রহমানের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা করা হয়েছে। বাংলাদেশের কৃষক, শ্রমিক ও আপামর জনতা যারা ঘুমন্ত অবস্থা ছিলো। কিন্তু আজ তারা জেগে উঠেছে। আমাদের নেতার বিরুদ্ধে যে মামলা করা হয়েছে আমরা সেটা প্রত্যাখান করছি। পুলিশ ভাইদের বলছি, আপনারা এতো মামলা দিচ্ছেন কেন? বাংলাদেশের জেলে মধ্যে জাতীয়তাবাদী দলের সৈনিকদের আটকিয়ে রাখা যাবে না।

তিনি আরও বলেন, আজকে একটি পত্রিকায় দেখলাম গেন্ডারিয়ায় বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। ওই মামলা এক আসামী অনেক আগেই মৃত্যু বরণ করেছে। তিনি কবর থেকে উঠে এসে ককটেল বিষ্ফোরণ ও দেশীয় অস্ত্র দিয়ে আওয়ামী লীগ নেতাদের উপর হামলা করেছেন। তারেক রহমান ও জোবায়দার বিরুদ্ধে যে মামলা করেছেন এটাও একটা ভূয়া মামলা। আমরা একটি নিরব ও শান্তিপূর্ণ সমাবেশ আমরা করবো এটা জেনেও পুলিশ আমাদের উপর হামলা করেছেন। উদ্দেশ্য প্রনোদিতভাবে পুলিশ হামলা করেছে, আমাদের নেতাদের গুলি করা হয়েছে। টিটুর চোখের মধ্যে গুলি করা হয়েছে। ডাক্তার এখোন বলেছে এই চোখে হাত দেয়া যাবে না এই চোখে আরও একটি গুলি রয়েছে। পুলিশ ভাইদের বলতে চাই আপনারা যাদের উপর হামলা করছেন এরা কারো না কারো ভাই, সন্তান। টিটু ভাইয়ের কসম খেয়ে বলছি, যতদিন দেশ নায়ক তারেক রহমানের একদফা বাস্তবায় না হবে। ততদিন নারায়ণগঞ্জে জিয়ার সৈনিকরা ঘরে ফিরবো না।

যুবদলের সদস্য সচিব মশিউর রহমান রনি বলেন, তারেক রহমান ও জোবায়দা রহমানের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা করা হয়েছে। এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। ডা. জোবায়দা রহমান একজন চিকিৎসক, যে কিনা এশিয়া মহাদেশের মধ্যে ১ম স্থান অধিকার করেছেন। তাকেও আজ মামলা দিয়ে সাজা দেওয়া হচ্ছে। আমাদের নেতা তারেক রহমান যদি বাংলাদেশে আসে তাহলে আওয়ামী লীগ তো দূরের কথা খুনি হাসিনাকেও খুজে পাওয়া যাবে না।

তিনি আরও বলেন, এই অবৈধ সরকার আমাদের দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নামে ভুয়া মামলায় ৯ বছর ও তর সহধর্মিণী যিনি রাজনীতি করেন না, সাধারণ মানুষের পক্ষে কথা বলতে গিয়ে তাকেও আজ তিন বছরের সাজা দেয়া হয়েছে। আমরা এই মিথ্যা মামলার প্রতিবাদ জানাই। আমরা এই দেশের মানুষের জন্য আন্দোলন সংগ্রাম করে যাচ্ছি। আমরা দেশের মানুষের ভালোর জন্য নিজের জীবন দিতে প্রস্তুত আছি।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন, জেলা যুবদলের সাবেক সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শহিদুর রহমান স্বপন, সাবেক সহ-সভাপতি আমিনুল ইসলাম ইমন, নারায়ণগঞ্জ জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রহমান, ফতুল্লা থানা যুবদলের আহ্বায়ক মাসুদুর রহমান মাসুদ, সদস্য সচিব সালাউদ্দিন আহমেদ, সোনারগাঁ উপজেলা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক নুরে ইয়াসিন নোবেল, রাসেল রানা, আশরাফ প্রধান, আশরাফ মোল্লা, রূপগঞ্জ উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক আমিনুল ইসলাম প্রিন্স, সোনারগাঁ উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক সালাউদ্দিন সালু, ফতুল্লা থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য সচিব রাসেল মাহমুদ, রূপগঞ্জ উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক রফিকুল ইসলাম, সদস্য সচিব আলী আহম্মদ, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি নাহিদ ভূঁইয়া, সাধারণ সম্পাদক জুবায়ের রহমান জিকু, ফতুল্লা থানা ছাত্রদলের আহ্বায়ক মেহেদী হাসান দোলন, সোনারগাঁ উপজেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক জাকারিয়া ভূঁইয়াসহ জেলা-উপজেলা ও ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ।

RSS
Follow by Email