রবিবার, মে ১৯, ২০২৪
Led05জেলাজুড়েরাজনীতি

উপজেলা নির্বাচনে লটারির নির্দেশ ইসির

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: এবারের উপজেলা নির্বাচনে লটারি করে বিজয়ী প্রার্থী নির্ধারণের নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। কোন পদে একাধিক প্রার্থী যদি সমান ভোট পায় তাহলে লটারী করার জন্য রিটার্নিং অফিসারকে নির্দেশ দেওয়া হয়।

ইসির নির্বাচন ব্যবস্থাপনা শাখার উপসচিব মো. আতিয়ার রহমান এই নির্দেশনা পাঠান।

২৭ মার্চ পাঠানো এই নির্দেশনায় বলা হয়, চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা সদস্য নির্বাচনের ক্ষেত্রে, ভোট গণনার ফলাফল একত্রীকরণের পর যদি দেখা যায় যে, দুই বা ততোধিক প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর অনুকূলে সমান সংখ্যক ভোট দেওয়ার কারণে উপবিধি (২) এর অধীন কোনো প্রার্থীকে নির্বাচিত করা সম্ভব নহে, তাহলে রিটার্নিং অফিসার লটারির মাধ্যমে ফলাফল নির্ধারণ করবেন; লটারি যে প্রার্থীর অনুকূলে যাবে সেই প্রার্থী সর্বোচ্চ ভোট প্রাপ্ত হয়েছেন বলে গণ্য হবে এবং রিটার্নিং অফিসার তাকে নির্বাচিত ঘোষণা করবেন; রিটার্নিং অফিসার তৎকর্তৃক সম্পাদিত লটারির সম্পূর্ণ কার্যক্রম লিপিবদ্ধ করে একটি কার্যবিবরণী প্রস্তুত করবেন এবং ওই কার্যবিবরণীতে উপস্থিত প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী বা নির্বাচনি এজেন্টের সই নেবেন।

নির্দেশনায় আরও বলা হয়, এছাড়া ভোট গ্রহণের আগে চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনীত বৈধ কোনো প্রার্থীর মৃত্যু হলে ক্ষেত্রমত, সংশ্লিষ্ট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদের নির্বাচন কার্যক্রম রিটার্নিং অফিসাররা বিজ্ঞপ্তির দ্বারা বাতিল করে দেবেন। পরবর্তীতে কমিশন সংশ্লিষ্ট নির্বাচনী এলাকার সংশ্লিষ্ট পদে নতুন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করবেন এবং কমিশনের এই সিদ্ধান্ত অনুসারে রিটার্নিং অফিসার নির্বাচন অনুষ্ঠানের পরবর্তী কার্যক্রম নেবেন। তবে শর্ত থাকে যে, ইতোমধ্যে কোনো প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ বলে সাব্যস্ত হয়ে থাকলে এবং তিনি তার প্রার্থিতা প্রত্যাহার না করে থাকলে তাকে নতুন করে মনোনয়নপত্র দাখিল করতে হবে না। ভোট গ্রহণের আগে মহিলা সদস্য পদে মনোনীত বৈধ কোনো প্রার্থীর মৃত্যু হলে ভোটগ্রহণ অবশিষ্ট প্রার্থীগণের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকবে।

প্রসঙ্গত, আগামী ৮ মে অনুষ্ঠিত হবে প্রথম ধাপে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। এ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ১৫ এপ্রিল ও মনোনয়নপত্র বাছাই ১৭ এপ্রিল। রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল ১৮ থেকে ২০ এপ্রিল। আপিল নিষ্পত্তি ২১ এপ্রিল, প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় ২২ এপ্রিল। প্রতীক বরাদ্দ ২৩ এপ্রিল, আর ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে ৮ মে।

RSS
Follow by Email