বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ১৮, ২০২৪
Led04রাজনীতিসদর

আব্দুল আউয়ালকে কটুক্তিকারীদের রাস্তায় নামতে দেব না: ফেরদাউসুর

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ডিআইটি মসজিদের খতিব মাওলানা আব্দুল আউয়ালকে নিয়ে কটুক্তি করার প্রতিবাদে সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে নারায়ণগঞ্জ মহানগর উলামা পরিষদ। ওই সমাবেশ থেকে কটুক্তিকারীদের অপতৎপরতা বন্ধের দাবি জানায় নেতৃবৃন্দরা।

শুক্রবার (৬ অক্টোবর) বাদ জুম্মা ডিআইটি মসজিদের সামনে সমাবেশটি পালন করা হয়।

সমাবেশে মাওলানা আব্দুল আউয়ালের পাশাপাশি আরও উপস্থিত ছিলেন- মহানগর ওলামা পরিষদের সভাপতি মাওলানা ফেরদাউসুর রহমান, সহ সভাপতি মাওলানা কামাল উদ্দিন দায়েমী, সাধারণ সম্পাদক মুফতি হারুনুর রশিদেসহ উলামা পরিষদের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ ও সাধারণ মুসুল্লিগণ।

সমাবেশে কটুক্তিকারীদের হুশিয়ারি জানিয়ে মাওলানা ফেরদাউসুর রহমান বলেন, এদের বিরুদ্ধে কী কথা বলব। এরা কী নাম নেয়ার মত লোক। আমি ক্যামেরায় যতটুকু দেখা যায় মানুষগুলো গুনেছি। সব মিলিয়ে ১৮/১৯ জন লোক নিয়ে আবদুল আউয়াল সাহেবকে চ্যালেঞ্জ করে, এটা হাস্যকর। আমরাতো আরও বড় বড় জিনিস নিয়ে খেলি। বেশি ধৈর্য্যশীল হলে সমস্যা। জশনে জুলুসের নামে ওরা যা করে। আল্লাহর রাসূল আমাদের হৃদয়ের টুকরো। তোমরা বেদাত করছো। মুরুব্বিরা ঘোষণা দিলে আগামীতে তোমাদের রাস্তায় নামতে দেব না। আমাদের রেকর্ড আছে।

তিনি আরও বলেন, আমি ওদের সাবধান করে দিচ্ছি। আমরা এখানে ছোট পরিসরে মিছিল করবো। ওসি সাহেব আমাকে বলছেন ভাই আপনারা প্রোগ্রাম করলে উনারাও নামবে। আমি বলি তাদের লোক কোথায়। এদের তো খুঁজেও পাওয়া যাবে না। আমরা পরিক্ষীত লোক।

সরকারকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ইসলামি ফাউন্ডেশন জায়গায় জায়গায় মসজিদ করেছে। তারপরেও সুনাম হয় না। কেন জানেন, কারণ সঠিক নেতৃত্বের হাতে দিতে পারেন নি। ইসলামি ফাউন্ডেশনকে আপনারা মাজার পূজারিদের হাতে দিয়েছেন। ইসলামি ফাউন্ডেশনের এসকল বেদাতি মাজার পূজারিদের কারনেই কেউ আপনাদের নাম নেয় না।

সমাবেশ শেসে ডিআইটি সমজিদের সামনে থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বেড় হয়ে নগরীর বঙ্গবন্ধু সড়ক দিয়ে চাষাঢ়ায় গিয়ে শেষ হয়।

উল্লেখ্য, সবশেষ পবিত্র ঈদ-এ-মিলাদুন্নবীর অনুষ্ঠানকে নিয়ে ডিআইটি মসজিদের খতিব আব্দুল আউয়ালের বিরুদ্ধে কটূক্তি করার অভিযোগে মানববন্ধন করে বাংলাদেশ আহলে সুন্নাত ওয়াল জামআত নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটি। মানববন্ধনের নেতৃত্বে ছিলেন বাংলাদেশ আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাআত নারায়ণগঞ্জ জেলা সদস্য সচিব মাওলানা গাজী মো. তামিম বিল্লাহ আল কাদরী। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখতে গিয়ে তামিম বিল্লাহ বলেন, শুক্রবার পর্যন্ত আমি আল্টিমেটাম দিলাম এর মধ্যে আব্দুল আউয়ালকে গ্রেফতার করতে হবে। অন্যথায় সুন্নি জামাআত শুক্রবার মাঠে নামবে। আব্দুল আউয়াল সাহেবকে কি ভাবে শায়েস্তা করতে হয় নারায়ণগঞ্জের মানুষ জানে। আব্দুল আউয়াল সাহেব জঙ্গি মদতদাতা! প্রশাসনকে বলবো তাকে রিমান্ডে এনে জিজ্ঞাস করেন।

RSS
Follow by Email