সোমবার, মে ২০, ২০২৪
Led04রাজনীতি

অনেকেই এখনও ঘুমিয়ে আছেন, নেত্রীর ইশারা বুঝতে পারেন নাই : খোকন সাহা

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নির্বাচনের মাসে আমাদের অনেকেই এখনও ঘুমিয়ে আছেন। নেত্রীর ইঙ্গিত ইশারা বুঝতে পারেন নাই। তারা বুঝে ঘুমাচ্ছেন না কি না বুঝে ঘুমাচ্ছেন জানি না। নেত্রী এই আসন খালি রেখেছেন কার জন্য? ওসমান পরিবারকে সম্মানিত করার জন্য।

মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এড. খোকন সাহা বন্দর সমরক্ষেত্রে অনুষ্ঠিত এক নির্বাচনী জনসমাবেশে তার বক্তব্যে এ কথা বলেন।

প্রিয় ভায়েরা আমার, বিজয়ের মাসে আমি শ্রদ্ধা জানাই জাতির জনক শেখ মুজিবুর রহমান ও মুক্তিযুদ্ধের ৩০ লক্ষ শহীদকে। ১৫ই আগস্টের জাতির জনক ও তার পরিবারের যাদেরকে হত্যা করা হয়েছে, চার জাতীয় নেতা যাদের হত্যা করা হয়েছে তাদেরও। স্বাধীনতাউত্তর নারায়ণগঞ্জ জেলার সবচেয়ে সৎ রাজনীতিবিদ, এই অঞ্চলে যিনি প্রথম স্বাধীনতার ছোঁয়া এনে দিয়েছিলেন, মরহুম এমপি একেএম শামসুজজোয়ার শান্তি কামনা করি। শান্তি কামনা করি প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারতের যে ১৮ নাগরিক আমাদের স্বাধীনতার জন্য রক্ত দিয়েছে। প্রিয় ভায়েরা আমার, নির্বাচনের মাসে আমাদের অনেকেই এখনও ঘুমিয়ে আছেন। নেত্রীর ইঙ্গিত ইশারা বুঝতে পারেন নাই। তারা বুঝে ঘুমাচ্ছেন না কি না বুঝে ঘুমাচ্ছেন জানি না। নেত্রী এই আসন খালি রেখেছেন কার জন্য? ওসমান পরিবারকে সম্মানিত করার জন্য। এই আসনটা নাসিম ওসমান ভাইয়ের আসন। নেত্রী নাসিম ওসমান ভাইকে অনেক স্নেহ করতেন। নেত্রীর সিদ্ধান্তকে স্যালুট জানাই, তার সিদ্ধান্তকে বাস্তবায়নের জন্য কাজ করি। আগামী ৭ তারিখের নির্বাচনে সবাইকে ভোট প্রদানে উদ্বুদ্ধ করবেন, যেন তারা সবাই সেলিম ওসমান ভাইকে লাঙ্গল মার্কায় ভোট দেন। বিএনপি জাতীয় ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বলে বেড়াচ্ছেন, তারা ছাড়া না কি ভোটাররা ভোট কেন্দ্রে উপস্থিত হবে না। আপনাদের আহ্বান জানাই, সবাই ভোটে অংশগ্রহণ করে বিএনপি জামায়াতের মুখে চুনকালি মারবেন।

এসময় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- নারায়ণগঞ্জ ৫ আসনের এমপি বীর মুক্তিযোদ্ধা একেএম সেলিম ওসমান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও মহানগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বাবু চন্দন শীল, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার ও সাবেক সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী, বন্দর উপজেলার পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম এ রশিদ, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহীদ বাদল ওরফে ভিপি বাদল, জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি সানাউল্লাহ সানু, সাবেক নারী সংসদ সদস্য হোসনে আরা বাবলী, মহানগর জাতীয় পার্টির সভাপতি মোদাচ্ছেরুল হক দুলাল, মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জিএম আরমান আইন বিষয়ক সম্পাদক এড. ওয়াজেদ আলী খোকন।

আরও উপস্থিত ছিলেন- এমপি সেলিম ওসমানের সহধর্মিনী নাসরিন ওসমান ও ছোট বোন নিগার ওসমান, মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মাহমুদা মালা, মহানগর জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক ও কাউন্সিলর আফজাল হোসেন, কলাগাছিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন প্রধান, বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এহসানউদ্দিন আহাম্মেদ, মুছাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাকসুদ আহাম্মেদ, জেলা পরিষদের সদস্য মাসুম আহাম্মেদ, ধামগড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল হোসেন, সাবেক কাউন্সিলর ও বিএনপি নেতা হান্নান, ২৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ সিরাজুল ইসলাম, ২২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও বিএনপি নেতা সুলতান আহম্মেদ ভুইয়া প্রমুখ।

RSS
Follow by Email