Tue, 12 Dec, 2017
 
logo
 

কাশীপুরে জোড়া খুন: গ্রেফতারকৃত ৬ আসামী ৩ দিনের রিমান্ডে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: ফতুল্লার কাশীপুরে জোড়া খুনের মামলায় আরো ১ আসামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বুধবার ভোরে মোঃ তৌফিকুল ইসলাম নামে এই যুবককে গ্রেফতার করা হয়।


এর আগে মঙ্গলবার বাবুরাইলসহ বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে এজাহারভুক্ত আসামি কিরণসহ ৫ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। গ্রেফতারকৃতরা হলেন,  আলাল হোসেন, জালাল, মনির, কামরুল হাসান  ও ইমরান। তারা সবাই বাবুরাইল এলাকায় বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতেন।
মঙ্গলবার দুপুর থেকে বুধবার ভোর পর্যন্ত বাবুরাইলসহ বিভিন্ন স্থানে অভিযান পচিালনা করে  তাদের গ্রেফতার করা হয় । পরে  তাদের সবাইকে ১০ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। পরে আদালত তাদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন।
মামলার তদন্তকারী অফিসার ডিবির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মাসুদ রানা জানান, মঙ্গলবার দুপুরে থেকে বুধবার ভোর পর্যন্ত অভিযান পরিচালনা করে ৬ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের সবাইকে ১০ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হলে আদালত ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।
প্রসঙ্গত, ১২ অক্টোবর রাতে কাশীপুরের হোসাইনি নগর এলাকাতে একটি রিকশার গ্যারেজে সশস্ত্র হামলাকারীরা কুপিয়ে তুহিন হাওলাদার মিল্টন (৪০) ও পারভেজ আহমেদ (৩৫) নামে দু'জনকে হত্যা করা হয়।
পরে নিহত পরিবারগুলোর পক্ষে মামলা না হওয়ায় শনিবার (১৪ অক্টোবর) দুপুরে ফতুল্লা মডেল থানার এস আই মোজাহারুল ইসলাম বাদী হয়ে ওই মামলাটি দায়ের করেন।
মামলার আসামিরা হলেন- ১নং বাবুরাইলের শুক্কুর মিয়ার বাড়ির ভাড়াটিয়া জয়নাল আবেদীনের ছেলে জাহাঙ্গীর বেপারী (৪০), তারা মসজিদ এলাকার কাজল মিয়ার ছেলে বাপ্পী (২৮), রবিন (৩০), রকি (২৮), ভূইয়াপাড়া এলাকার মজনু মিয়ার ছেলে আমান (৩২), বাবুরাইল শেষমাথা এলাকার খোকা মিয়ার ছেলে শহিদ (৩০), তারা মসজিদ এলাকার আসলাম (৫০), ঋষিপাড়া এলাকার মৃত জাকিরের ছেলে মাহাবুব (৩০), বিএনপি নেতা হাসান আহমেদের ভাতিজা শিপলু (৩০) ও রাসেল (৩৩), বাবুরাইল এলাকার মুক্তা (২৮), পাইকপাড়া জিমখানা ডিমের দোকান এলাকার শরীফ (৩৩), বাবুরাইলের রানা (২৮), কিরণ (৩০), মানিক (৩০), আবদুল মান্নানের ছেলে ফয়সাল (২৬), বন্দর এলাকার রাব্বি (৩০), ১নং বাবুরাইলের নিলু সরদারের ছেলে সোহাগ (৩২), শেষমাথা এলাকার রাকিব (২৭), ঋষিপাড়া এলাকার সিরাজ মিয়ার ছেলে রাজন (৩০), বাবুরাইল এলাকার রিক্সা আবুল (৩৫), একই এলাকার ফরহাদ (৫২) সহ অজ্ঞাত আরো ১শ থেকে ১২৫ জন।

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম