Sun, 23 Sep, 2018
 
logo
 

বিদ্যুৎ বিল দেয় না না.গঞ্জের সরকারী অফিসগুলোই, বকেয়া সোয়া ২ কোটি

স্টাফ করেসপন্ডেনন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন সরকারী প্রতিষ্ঠান ও অফিসের কাছে বকেয়া রয়েছে কোটি টাকার বিদ্যুৎ বিল। সরকারি-আধা সরকারি এসব প্রতিষ্ঠানের কাছে দীর্ঘদিন বিদ্যুৎ বিল বকেয়া পড়লেও তা পরিশোধের কোনো উদ্যোগ নেই।

বছরের পর বছর ধরেই এ অবস্থা বিরাজ করছে জেলার বিদ্যুৎ বিভাগে, আর সরকারি প্রতিষ্ঠানের কাছে বর্তমানে সোয়া ২ কোটি টাকারও অধিক বিদ্যুৎ বিল বকেয়া পড়ে রয়েছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির।

যদিও বিভিন্ন মন্ত্রণালয়সহ সরকারি, আধা-সরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানের বার্ষিক বাজেটে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের জন্য অনুমিত অর্থ বরাদ্দ থাকে। কিন্তু তারপরও বিল পরিশোধ করা হচ্ছে না।

অফিস সূত্রে জানা যায়, গত আগষ্ট মাস পর্যন্ত শুধু বিভিন্ন সরকারী অফিসের কাছেই ২ কোটি টাকার বিদ্যুৎ বিল পাওনা আছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির। এছাড়া সরকারি বরাদ্দ প্রাপ্ত বাসভবনে ১৬ লাখ ২৭ হাজার ৫‘শ ২৩ টাকা বকেয়া বিল রয়েছে। বার বার তাগিদ দেয়া সত্ত্বেও প্রতিষ্ঠানগুলো বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করছে না। আর এ দায় টানতে গিয়ে হিমশিম খাচ্ছে সংশ্লিষ্টরা। এর মধ্যে অনেক সরকারি প্রতিষ্ঠান বছরের পর বছর ধরে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করছে না। এ নিয়ে দফায় দফায় বৈঠক, চিঠি চালাচালি চললেও বাস্তবে কোনো কাজ হচ্ছে না। পরিশোধ হচ্ছে না বকেয়া বিদ্যুৎ বিল। ফলে বিদ্যুৎ বিতরণ কোম্পানি আর্থিকভাবে ক্ষতির মুখে পড়তে হচ্ছে।

সাধারণত ২ মাসের বিদ্যুৎ বিল বকেয়া হলেই বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়ার কথা। কিন্তু এমন অনেক প্রতিষ্ঠান রয়েছে যারা বছরের পর বছর ধরে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করছে না।

পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির একাধিক কর্মকর্তা নাম না প্রকাশ করার শর্তে জানান, আবার বিভিন্ন কারণে প্রতিষ্ঠানগুলোর বিদ্যুৎ সংযোগও বিচ্ছিন্ন করা বিতরণ কোম্পানির পক্ষে সম্ভব হচ্ছে না। তাই সরকারি প্রতিষ্ঠান গুলোর বকেয়া বিল পরিশোধের বারবার অনুরোধ করা হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম