Fri, 28 Apr, 2017
 
logo
 

বদলে গেছে না.গঞ্জ আদালত পাড়ার দৃশ্যপট, নেই ব্যস্ততা কোলাহল

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: দিনভর ব্যস্ত কোলাহল মুখোর নারায়ণঞ্জ আদালত পাড়ায় এখন নেই তেমন ব্যস্ততা। আইনজীবী, বিচারপ্রার্থী, গোয়েন্দা বাহিনীর সদস্য ও স্বল্প আয়ের মানুষদের আনা-গোনা এখন নেই বললেই চলে।

আদালত পাড়ায় ডিসেম্বর মাস এলেই দেখা যায় এমন দৃশ্যপট। প্রতিবছরের এই একটি মাসই নি¤œ আদালতের অবকাশকালীন ছুটি থাকে। এই ছুটি চলাকালীন সময়ে চীরচেনা আদালত পাড়া কেমন যেন অচেনা মনে হয়।

জেলা জজ আদালত প্রাঙ্গণে সোমবার গিয়ে দেখা যায়, আদালতে নেই সেই ব্যস্ততা। শুধু দু’একটি আদালত খোলা রয়েছে। আদালতের দায়িত্বরত কর্মচারীরা তাদের কিছু পেন্ডিং কাজ শেষ করছেন।

আদালত ভবনের সামনে মোহাম্মদ রিপন নামের এক হকার বলেন, ‘ডিসেম্বর মাস খুব অর্থনৈতিক মন্দায় থাকতে হয়। আগে দৈনিক দুই হাজার টাকা বেচা-বিক্রি হতো। আর এখন ব্যবসা অর্ধেকে নেমে এসেছে। আদালতে আইনজীবী ও মক্কেল না আসায় এ বেচা-বিক্রি হচ্ছে না। এতে খুব অভাবে সংসার চালাতে হচ্ছে।’
বদলে গেছে না.গঞ্জ আদালত পাড়ার দৃশ্যপট, নেই ব্যস্ততা কোলাহল
চা দোকানদার ফারুক জানান, আগের থেকে অনেক ব্যবসা কমে গেছে। আদালতে কোনো মানুষ নেই। তাই ব্যবসা খারাপ। ডিসেম্বর মাস আসলেই টেনশন হয়। চালান ঠিক মতো ওঠে না। এক মাস দীর্ঘ সময় ধরে আদালত বন্ধ থাকায় অনেক অভাবে সংসার চালাতে হয়। তবে জানুয়ারি থেকে আবার পুরোদমে আদালত চালু হলে ব্যবসা ভালো হবে বলে আশা করেন তিনি।

এড. অঞ্জন দাস জানান, ডিসেম্বর মাসে আদালত বন্ধ থাকায় বেকার সময় কাটাতে হয়। জজকোর্ট বন্ধ থাকলেও ম্যাজিস্ট্রেট আদালত, বিশেষ জজ আদালত ও দ্রুত বিচার আদালতের বিচারিক কার্যক্রম চলতে থাকে।

তিনি আরো জানান, ডিসেম্বর মাসে অবকাশকালীন ছুটিতে অনেক আইনজীবী গ্রামের বাড়িতে বেড়াতে যান। অনেকে সামর্থ্য অনুযায়ী দেশের বাইরেও ঘুরতে যান।

তিনি জানান, জানুয়ারি মাসের ১ তারিখ থেকে আবার আগের মতো আদালতের বিচার কাজ শুরু হলে কর্মচাঞ্চল্য শুরু হবে।

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম ২৪