Tue, 11 Dec, 2018
 
logo
 

দিন শুরু হওয়ার আগেই শহরের সকল ময়লা অপসারণ করতে হবে: রফিউর রাব্বি

লাইভ নারায়ণগঞ্জ: সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রফিউর রাব্বি বলেছেন, ‘আমরা সিটি কর্পোরেশনের কাছে আহ্বান জানাবো যে দিন শুরু করার আগেই যেনো মীর জুমলা সড়কসহ শহরের বিভিন্ন স্থানে রাখা ময়লাগুলো অপসারণ করা হয়। আমরা নগরবাসীরা বিভিন্ন সময় সিটি কর্পোরেশনকে কর দেই।

আমরা স্বাচ্ছন্দে জীবন যাপন করার জন্যেই কর দেই। তাই আমাদের সুযোগ সুবিধাগুলো আপনাকেই নিশ্চিত করতে হবে। সিটি কর্পোরেশনের কাছে এই শহরকে পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য যা যা ব্যবস্থা গ্রহণ করা প্রয়োজন তার সকল ব্যবস্থা গ্রহণ করার আহ্বান জানাচ্ছি।’

শনিবার (২২ সেপ্টেম্বর) বিকেলে নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামনে আয়োজিত নাগরিক কমিটির একটি মানববনন্ধনে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘আমাদের জনপ্রতিনিধিরা এমন অপরিচ্ছন্ন-অপরিকল্পিত একটি নগর ব্যবস্থা আমাদের ঘাড়ে চাপিয়ে দিবে এটি হতে পারে না। এটি কোনো ভাবেই আমাদের কাম্য নয়। আমরা বিভিন্ন সূত্রে জানতে পেরেছি যে, প্রতিমাসে ৪ কোটি টাকা চাঁদা তোলা হয় নারায়ণগঞ্জ শহরের হকারদের কাছ থেকে। এবং ৪ কোটি টাকার উপরে চাঁদা উঠে সিদ্ধিরগঞ্জের হকারদের কাঝ থেকে। এই টাকার ভাগ শুধুই যে রাজনৈতিক ব্যক্তিদের পকেটে যায় তা নয়, প্রশাসনের লোক যদি এদের সাথে জড়িত না থাকে তবে এমনি ভাবে হকারদের তুলে দেয়ার পরেও শহরে হকার বসবার কথা ছিলো না। আমরা এর সুষ্ঠ সমাধান চাই।’

তিনি আরও বলেন, ‘এদিকে ৬ -৭ বছর আগে পৌরসভা উদ্যোগ নিয়ে মীর জুমলা সড়কটি অবৈধ দখলমুক্ত করেছিলো। আজকে আমরা দেখছি সেই সড়ক আবারো দখল হয়েছে। এবং বিভিন্ন ব্যক্তিবর্গ সেখানে পণ্য সাজিয়ে বসছে। পাশাপাশি বিরাট একটি অংশ জুড়ে সেটিকে আস্তাবল বানানো হয়েছে। এখান থেকে কারা চাঁদা নিচ্ছে কারা কী করছে সেটি আমাদের প্রশ্ন নয় আমাদের দাবি সড়কটিকে অবিলম্বে দখলমুক্ত ও পরিচ্ছন্ন করতে হবে।’

মীর জুমলা সড়কসহ নারায়ণগঞ্জ শহরের সকল সড়ক আবর্জনা ও দখরমুক্ত রাখার দাবিতে আয়োজিত উক্ত মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ নাগরিক কমিটির সভাপতি এবি সিদ্দীক, সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমান, গণসংহতি আন্দোলন নারায়ণগঞ্জ জেলার সমন্বয়ক তরিকুল সুজন, সুজনের নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক আহমেদুর রহমান তনু, নাগরিক কমিটি বন্দর থানা শাখার সভাপতি মো: মোজাম্মেল হক প্রমুখ।

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম