Sat, 20 Oct, 2018
 
logo
 

সামনে বড় চ্যালেঞ্জ রয়েছে: শামীম ওসমান


সিদ্ধিরগঞ্জ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ-৪ (সিদ্ধিরগঞ্জ-ফতুল্লা) আসনের সংসদ সদস্য একেএম শামীম ওসমান বলেছেন, সকল বিভেদ ভুলে সবাই ঐক্যবদ্ধ হোন, সামনে বড় চ্যালেঞ্জ রয়েছে। সেজন্যই আমাদের প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা আওয়ামীলীগের তৃনমূলের নেতাদেরকে ডেকে নিয়ে তাদের সাথে মতবিনিময় করে সবাইকে সকল বিভেদ, দ্বিধা দ্বন্ধ ভুলে গিয়ে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে জনগনের কাছে সরকারের উন্নয়ণের চিত্র তুলে ধরার পরামর্শ দিয়েছেন।

শুক্রবার (১৩ জুলাই) রাতে নাসিক ৭নং ওয়ার্ডের কদমতলী এলাকাস্থ নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্যের সিদ্ধিরগঞ্জ আঞ্চলিক কার্যালয়ে আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে ঘিরে থানা আওয়ামীলীগ ও সকল অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্ধের সাথে জরুরী বৈঠকে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব মজিবুর রহমানের সভাপতিত্বে উক্ত বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় শ্রমিকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সভাপতি আব্দুল মতিন মাষ্টার, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মো: শাহ আলম, মতিউর রহমান বেপারী, সাধারন সম্পাদক হাজী ইয়াসিন মিয়া, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক বাবু কালীপদ মল্লিক, যুগ্ন সম্পাদক ও ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলী হোসেন আলা, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু বক্কর সিদ্দিক, প্রচার সম্পাদক তাজিম বাবু, তথ্য ও গবেষনা সম্পাদক হাজী সালাউদ্দিন, সাংস্কৃতিক সম্পাদক হোসেন আলম মেম্বার, থানা যুবলীগের আহ্বায়ক, নাসিক ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র-২ আলহাজ্ব মতিউর রহমান মতি, থানা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক ও নাসিক ৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শাহজালাল বাদল, আদমজী আঞ্চলিক শ্রমিকলীগের সভাপতি আব্দুস সামাদ বেপারী, সাধারন সম্পদক হাজী সালাউদ্দিন, থানা কৃষকলীগের সাধারন সম্পদক ইয়াছিন মিয়া, থানা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারন সম্পাদক আমিনুল হক রাজু, থানা মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও নাসিক ৪,৫,৬নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর মনোয়ারা বেগম, নাসিক ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাজী ওমর ফারুক, ৪নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আরিফুল হক হাসান, ৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রুহুল আমিন মোল্লা ও ১০নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাজী ইফতেখার আলম খোকন প্রমূখ।
এছাড়াও শামীম ওসমান বলেন, আমি আমার নির্বাচনী এলাকার প্রত্যেকটি কেন্দ্র পরিচালনা কমিটিকে নিয়ে সাধারন জনগনের সাথে বেশি বেশি করে উঠান বৈঠক করতে চাই। আগামী ২২ থেকে ২৫ জুলাই ফতুল্লায় এবং ২৬ থেকে ২৯ জুলাই সিদ্ধিরগঞ্জে কর্মসূচি শুরু করবো। আমি গত ৯৬’র নির্বাচনে নির্বাচিত হওয়ার পর ২৬’শ কোটি টাকার কাজ করেছি এবং দ্বিতীয় বার নির্বাচিত হওয়ার পরও বলেছিলাম আগের চেয়ে আরো বেশি কাজ করবো। আমি সাধ্য মতো কাজ করে যাচ্ছি, আশা করি এবার ৩ হাজার কোটি টাকারও বেশি উন্নয়ণ কাজ করতে পারবো। এ উন্নয়ণের বার্তা নিয়ে জনগনের কাছে তুলে ধরতে হবে এবং সবাইকে সকল বিভেদ ভুলে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আগামী দিনের যেকোন পরিস্থিতি মোকাবেলার জন্য প্রস্তুত করতে হবে। আমরা অস্ত্রের শক্তি প্রদর্শন করতে চাইনা, আমরা সাংগঠনিক শক্তি প্রদর্শন করতে চাই।
এছাড়াও অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, থানা আওয়ামীলীগ সদস্য বদিউজ্জামান বদু, রমজান আলী, বাদল হোসেন মেম্বার, আওয়ামীলীগ নেতা আলহাজ্ব আনোয়ারুল ইসলাম, আলহাজ্ব আনিসুর রহমান, ২নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আবুল হোসেন, আওয়ামীলীগ নেতা আব্দুল হেকিম, সুমিলপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি হাজী হোসেন সর্দার, সাধারন সম্পাদক কাজী শাহজাহান, গোদনাইল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি এমএ বারী, সাধারন সম্পাদক খন্দকার শাহ আলম, ১০নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ সভাপতি মহিউদ্দিন, থানা ছাত্রলীগের যুগ্ন আহ্বায়ক আব্দুল মজিদ, শাহাবুদ্দিন রিপন, যুবলীগ নেতা মাসুদ রানা, মুন্না খান, স্বেচ্ছাসেবকলী নেতা হাজী জহিরুল ইসলাম, ইলিয়াস মোল্লাসহ প্রমূখ নেতৃবৃন্ধ উপস্থিত ছিলেন ।

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম