Wed, 24 Oct, 2018
 
logo
 

যুবলীগ সভাপতির ছেলের ব্যবসায়িক পার্টনারের দোকানে ফেন্সিডিল, আটক ১

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, লাইভ নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ জেলা যুবলীগের সভাপতি আব্দুল কাদিরের ছেলে মহানগর ছাত্রলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মিনহাজুল কাদির মিমনের বন্ধু  ও ব্যবসায়ীক পাটনার রাসেলের দোকান থেকে ২১০ বোতল ফেন্সিডিল জব্দ করছে পুলিশ। এসময়  প্রিন্স নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করা হয়।

রোববার (১৪ জানুয়ারি) বিকেল সাড়ে ৫টায় নগরীর নিতাইগঞ্জে বানিজ্যিক এলাকার রাসেলের দোকান থেকে ওই ফেন্সিডিল উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত প্রিন্স শহরের ৯৭ নং পাইকপাড়া শাহসুজা রোডের কাজী জামালের ছেলে। সে রাসেলের দোকানের কর্মচারী ছিল বলে জানাযায়।

পুলিশ জানায়, নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার অভিযান-১ টিমের প্রধাণ সেকেন্ড অফিসার এসআই শফিকুল ইসলাম'র নেতৃত্বে এএসআই মোকাররম হোসেন সঙ্গীয় ফোর্সের অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। অভিযানে শহরের নিতাইগঞ্জ বানিজ্যিক এলাকার কাজী আলমগীর বাদশার ভাড়া দেওয়া পাইকপাড়া এলাকার বাসিন্দা রাসেলের দোকান থেকে ২১০ বোতল ফেন্সিডিলসহ মাদক ব্যবসায়ী প্রিন্সকে (২৭) আটক করা হয়।

বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার সেকেন্ড অফিসার শফিকুল ইসলাম জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাসেলের বন্ধ দোকানের সাটারের তালা ভেঙে তার ভিতরে থেকে ২১০ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় তার সাথে জড়িত সন্দেহে এক জনকে আটক করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন আছে।

আর এই ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের মালিক রাসেল মহানগর ছাত্রলীগ যুগ্ম আহ্বায়ক মিনহাজুল কাদির মীমনের ব্যাবসায়িক অংশীদার, যা জনমুখে শুনতে পেয়েছেন বলে আরও জানান এসআই শফিকুল ইসলাম।

প্রসঙ্গত, গত ১২ জানুয়ারি স্থানিয় একটি পত্রিকায় মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ্ নিজামের বিরুদ্ধে কথা বলে ছিলেন মিনহাজুল কাদির মীমন। সেখানে জনপ্রিয় এই আওয়ামীলীগের নেতাকে নিয়ে  নানা মন্তব্য করেছিলেন তিনি। সেখানে মেমন শাহ্ নিজামকে উদ্দেশ্য করে বলেছিলেন, ‘প্রভুভক্ত বিশেষ প্রানীর মতো বকছেন শাহ নিজাম। নিজেরা দূর্নীতিবাজ হয়ে জননন্দিত মেয়রের দূর্নীতির গন্ধ পান, মগজের আর নাকের চিকিৎসা করান’।

সর্বশেষ সংবাদ শিরোনাম